বাংলাদেশ, , মঙ্গলবার, ৫ মার্চ ২০২৪

পবিত্র রবিউল আউয়ালকে স্বাগত জানিয়ে গাউসিয়া কমিটির র‌্যালি

  প্রকাশ : ২০২৩-০৯-১৬ ১৫:১১:৩০  

পরিস্থিতি২৪ডটকম : চট্টগ্রাম মহানগর গাউসিয়া কমিটির ব্যবস্থাপনায় পবিত্র রবিউল আউয়ালকে স্বাগত জানিয়ে র‌্যালি বের হয়েছে নগরে। শুক্রবার (১৫ সেপ্টেম্বর) জমিয়তুল ফালাহ মসজিদে আসর নামাজ আদায়ের পর হাজার হাজার ধর্মপ্রাণ মুসল্লি এ র‌্যালিতে অংশ নেন।
বিকেল ৩টা থেকে নগরের বিভিন্ন এলাকা থেকে মিছিল নিয়ে গাউসিয়া কমিটির কর্মীরা জমিয়তুল ফালাহ ময়দানে সমবেত হতে থাকেন। আসরের পর সংক্ষিপ্ত সমাবেশ শেষে মুসল্লিদের হাতে বাংলাদেশের জাতীয় পতাকা, চাঁদ-চার তারকার ত্রিকোণাকার সবুজ পতাকা, বিভিন্ন আহবান সম্বলিত প্লে-কার্ড, ফেস্টুন, ইয়া নবী সালাম আলাইকা, মোস্তফা জানে রহমত পে লাখো সালাম ইত্যাদি হামদ-না’তে রাসূল (দ.), নারায়ে তকবির – আল্লাহু আকবর, নারায়ে রিসালাত- ইয়া রাসুলাল্লাহ (দ.) নানা স্লোগানে র‌্যালি শুরু হয়। প্রধান-প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে প্রেস ক্লাব চত্বরে গিয়ে শেষ হয় র‌্যালি।
সমাবেশে বক্তারা বলেন, বিশ্বমানবতার মুক্তির দিশারি রহমাতুল্লিল আলামিন হিসেবে হজরত মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের এ ধরাতে শুভাগমনের মহান নিদর্শন পবিত্র রবিউল আউয়াল। সৃষ্টির মূল রহস্য রাসুলের (দ.) এ পৃথিবীতে শুভাগমন বিশ্বমানবতার জন্য এক মহা নেয়ামত। আর এ নেয়ামত প্রাপ্তিতে পবিত্র কোরআনে শোকরিয়া আদায়ের মাধ্যমে সাফল্য অর্জনের নির্দেশনা রয়েছে। এ নির্দেশনা বাস্তবায়নের জন্য আল্লামা হাফেজ কারি সৈয়দ মুহাম্মদ তৈয়ব শাহ (র.) ১৯৭৪ সালে পবিত্র জশনে জুলুছে ঈদ-এ মিলাদুন্নবীর (দ.) গোড়াপত্তন করেছিলেন, তা আজ বিশ্বব্যাপী সমাদৃত।
বক্তারা আনজুমান ট্রাস্টের উদ্যোগে ৯ রবিউল আউয়াল রাজধানী ঢাকায় এবং ১২ রবিউল আউয়াল বন্দরনগরী চট্টগ্রামে ৫১তম জশনে জুলুছে ঈদ-এ মিলাদুন্নবী (দ.) সফল করার জন্য সর্বস্তরের মুসলমানদের প্রতি আহবান জানান।

গাউসিয়া কমিটি বাংলাদেশ চট্টগ্রাম মহানগর শাখার সভাপতি তছকির আহমদের সভাপতিত্বে, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা মুহাম্মদ আব্দুল্লাহর সঞ্চালনায় সমাবেশে উদ্বোধক ছিলেন আনজুমান-এ রহমানিয়া আহমদিয়া সুন্নিয়া ট্রাস্টের সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট মুহাম্মদ মহসিন। প্রধান অতিথি ছিলেন পিএইচপি ফ্যামিলির চেয়ারম্যান সুফি মুহাম্মদ মিজানুর রহমান। প্রধান বক্তা ছিলেন আনজুমান ট্রাস্টের সেক্রেটারি জেনারেল মুহাম্মদ আনোয়ার হোসেন। বিশেষ অতিথি ছিলেন আনজুমান ট্রাস্টের অ্যাডিশনাল জেনারেল সেক্রেটারি ও জুলুছ সাব কমিটির আহবায়ক মোহাম্মদ শামসুদ্দিন, আর্গানাইজিং সেক্রেটারি মুহাম্মদ মাহবুবুল আলম, ফিন্যান্স সেক্রেটারি এনামুল হক বাচ্চু, গাউসিয়া কমিটি বাংলাদেশের চেয়ারম্যান পেয়ার মোহাম্মদ, সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান মুহাম্মদ আনোয়ারুল হক, যুগ্ম মহাসচিব মাহবুবুল হক খান, সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবে এলাহী সিকদার, কমরুদ্দীন সবুর, আবদুল হাই মাসুম, জামেয়া আহমদিয়া সুন্নিয়া আলিয়ার অধ্যক্ষ আল্লামা আবদুল আলিম রিজভী, আহলে সুন্নাত ওয়াল জামাআত চট্টগ্রাম মহানগর সভাপতি আল্লামা শাহ নুর মোহাম্মদ আলকাদেরী, খায়র মোহাম্মদ, মোহাম্মদ হাসান, আবদুল হামিদ সর্দার, মোহাম্মদ আবুল বশর, সাবের আহমদ, মোহাম্মদ সেকান্দর মিয়া, আইয়ুব দোভাষ, দ্বীন মোহাম্মদ, মোহাম্মদ মনজুরুল আলম মঞ্জু, মাওলানা মুহাম্মদ ইলিয়াস আলকাদেরী, মুহাম্মদ মুনির উদ্দিন সোহেল, মুহাম্মদ সালামত উল্লাহ, হাবিবুর রহমান সর্দার, মোহাম্মদ ইলিয়াস মুন্সী, মোহাম্মদ হাশেম, খন্দকার ইরশাদুল আলম হীরা, মোহাম্মদ আলম আবদুল্লাহ, মোহাম্মদ সাহাব উদ্দীন, মাওলানা সালামত আলী, মাওলানা হারুনুর রশিদ, মুহাম্মদ মুসলিম উদ্দিন, মুহাম্মদ ফয়েজুর রহমান, মুহাম্মদ আনোয়ার হোসেন, জাহাঙ্গীর আলম, মোহাম্মদ জানে আলম জানু, মুহাম্মদ জোবায়েদ উদ্দিন টুটুল, রেজাউল হোসেন জসিম, মোহাম্মদ হামিদ প্রমুখ।

শেষে জশনে জুলুসের কামিয়াবি এবং দেশ ও জাতির সমৃদ্ধি কামনা করে দোয়া ও মোনাজাত করা হয়।

সুত্র : বাংলা নিউজ২৪ডটকম ।



ফেইসবুকে আমরা