বাংলাদেশ, , মঙ্গলবার, ২১ মে ২০১৯

কিরাত বাংলার লেখক মিলনমেলায় বক্তারা : প্রাচীন চট্টগ্রামের প্রত্ন ও সাহিত্যের ইতিহাসগুলো পাঠ্যবইয়ে অন্তর্ভূক্তির দাবী

  প্রকাশ : ২০১৮-১২-২৩ ১২:৩৭:০৮  

পরিস্হিতি২৪ডটকম : সাত হাজার বছরের প্রাচীন চট্টগ্রামের ঐতিহাসিক প্রত্ন নিদর্শন ও গৌরব উজ্জ্বল প্রাচীন ইতিহাস ও নন্দিত সাহিত্যগুলো জাতীয় পাঠ্যপুস্তুকে অন্তর্ভূক্তির দাবী জানিয়েছেন চট্টগ্রামের লেখক মিলনমেলায় বক্তারা। ইতিহাস ঐতিহ্য ও সাহিত্য বিষয়ক লিটলম্যাগ কিরাত বাংলা’র নবম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে প্রাচীন চট্টগ্রামের পূর্ণাঙ্গ ইতিহাস গ্রন্থ রচিয়তা চৌধুরী শ্রী পূর্ণচন্দ্র দেবব্রহ্মা তত্ত্বনিধি স্মরণে লেখক মিলনমেলা ১৪২৫ বঙ্গাব্দ অনুষ্ঠিত হয়। ২২ ডিসেম্বর ২০১৮ শনিবার চট্টগ্রাম নগরীর কাশফুল রেস্টুরেন্ট-এ এই মিলনমেলা ও আলোচনা সভা কিরাত বাংলার সম্পাদক ইতিহাস গবেষক সোহেল মুহাম্মদ ফখরুদ-দীন সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রবীন ক্রিড়াবিদ, বিশিষ্ট লেখক-গবেষক বাবু দুলাল বড়ুয়া। প্রধান আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শতাধিক গ্রন্থ প্রনেতা, ইতিহাসবিদ ও কবি মাহমুদুল হাসান নিজামী। উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম কবিতা পরিষদের সভাপতি কবি আরিফ চৌধুরী। বিশিষ্ট প্রাবন্ধিক ও লেখক এ কে এম আবু ইউসুফের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রবীন শিক্ষাবিদ অধ্যক্ষ নুরুল আলম, ইতিহাসবিদ অধ্যক্ষ মুহাম্মদ ইউসুফ কুতুবী, প্রধান শিক ও সাংস্কৃতিক ব্যাক্তিত্ব মিন্টু কুমার দাশ, কধুরখীল বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক, নাট্যজন বাবু বাবুল কান্তি দাশ, কবি সফিকুল ইসলাম চৌধুরী, প্রাবন্ধিক ডাঃ মোঃ জামাল উদ্দিন, প্রবীন শিক্ষাবিদ ও লেখক অধ্যাপক জিতেন্দ্রলাল বড়ুয়া, কবি ও সাহিত্যিক শিহাব ইকবাল, কবি ও ছড়াকার নাসির বিন ইব্রাহিম, সাংবাদিক আবদুল মান্নান, সাংবাদিক সমীর কান্তি দাশ, কবি ও মানবাধিকারকর্মী উদয়ন বড়ুয়া ঝন্টু, কবি প্রিয়াংকা বড়ুয়া, অধ্য হেকিম শিহাব উদ্দিন চৌধুরী, ছড়াকার সাফাত বিন সানাউল্লাহ, কবি মোঃ আবদুল হালিম, কবি দেলোয়ার হোসেন মানিক, প্রাবন্ধিক ডাঃ বরুণ কুমার আচার্য বলাই, প্রকৌশলী কবি সৌমেন বড়ুয়া, ভদন্ত দীপানন্দ স্থবির, রাজনীতিবিদ অমর কান্তি দত্ত, ছড়াকার সাংবাদিক সৈয়দ শিবলী ছাদেক কফিল, সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী, কবি শাহনুর আলম, আলোকচিত্রী ও সাংবাদিক সমীরণ পাল, পণ্ডিত তরুণ কুমার আচার্য কৃষ্ণ, পণ্ডিত অরুণ কুমার আচার্য, মিন্টু চক্রবর্তী, হ্যাপি বড়ুয়া, বিমল তালুকদার, লেখক ওসমান গণি, মোহাম্মদ নুরুল আলম, মো. শহিদুল আলম, লিটন চক্রবর্তী প্রমূখ। লেখক মিলনমেলায় বক্তারা বলেছেন, প্রাচীন এই চট্টগ্রামের ইতিহাস বিশ্ব-ইতিহাসে নন্দিত। সাত হাজার বছর আগে এই চট্টগ্রামে মানববসতি ছিল, যা ইতিহাস গবেষণায় ও প্রতœবস্তু আবিস্কারের ফলে প্রমাণিত। চট্টগ্রামের মতো এত প্রাচীন ইতিহাস অন্যকোন দেশে পাওয়া যাবে না। ইতিহাস ঐতিহ্য বিবেচনায় এই চট্টগ্রামের ইতিহাসের সাথে গৌরব উজ্জ্বল ভূমিকা জড়িত। মহাভারত ও বাল্যকিনির গ্রন্থে এই প্রাচীন চট্টগ্রামের কথা বর্ণনা রয়েছে। আদিনাথ, চন্দ্রনাথ ও কাঞ্চননাথ তারই স্বাী। পৃথিবীর প্রথম দূর্গাপূজা এই চট্টগ্রামের মাটিতেই সম্পন্ন হয়। করলডেঙ্গা মেধশ আশ্রম তারই প্রমাণ এখনও বহন করে চলছে। মহাকবি আলাওল, মোহিনী চন্দ্র দাশ, মধ্যযুগের কবি আবদুল হাকিম সহ অসংখ্য কালজয়ী কবি সাহিত্যিকের সাহিত্য অযতেœ-অবহেলায় এই অঞ্চলের ঘরে ঘরে। বাংলা সাহিত্যের মলকা বানু-মনুমিয়া স্মৃতি জড়িত ইতিহাস আনোয়ারা ও বাঁশখালীতে এখনও রয়েছে। প্রাচীন বাংলার ইতিহাস সম্পদ কিরাত বাংলা’র জৈন রাজার বাড়ি এখনও চন্দনাইশের বরমা শঙ্খ নদীর তীরে অবস্থিত। বিটিশ বিরোধী আন্দোলনের পুরোধা হাবিলদার রজব আলী, বিপ্লবী মাস্টার দা সূর্যসেন ও প্রীতিলতা ইতিহাসের স্বাী চট্টগ্রাম। সামাজিক সাহিত্যিক, লোক সাহিত্য, মরমী সাহিত্য ও লোক কথাগাঁথা প্রাচীন এই চট্টগ্রামে অনেক সাহিত্যের ইতিহাস বিশ্বদরবারে পরিচিত। এই সমস্ত ইতিহাসগুলো বর্তমান প্রজন্মকে জানানোর লে আমাদের জাতীয় পাঠ্যপুস্তুকে অন্তর্ভূক্তির দাবী জানানো হয়। লেখক মিলনমেলায় আগামী ফেব্র“য়ারি মাসে চট্টগ্রামের কালজয়ী ইতিহাস রচয়িতা শ্রী পূর্ণচন্দ্র দেবব্রহ্ম তত্ত্বনিধির জন্ম ভিটা পাডিগ্রামে ইতিহাস লেখক সম্মেলন করার সিদ্ধান্ত গ্রহীত হয়।
প্রেস বিজ্ঞপ্তি



ফেইসবুকে আমরা